নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পঞ্চম ধাপে অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলায় এক কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থককে দালাল বলায় ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ সময় আহত হয়েছেন দুইজন। তবে ভোটগ্রহণ স্বাভাবিক রয়েছে বলে জানা গেছে।

আজ রবিবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) সকাল সাড়ে ৯ টার দিকে কালীগঞ্জ উপজেলার কাশিপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে।

প্রত্যক্ষদর্শীদের সূত্রে জানা যায়, কাউন্সিলর প্রার্থী আরিফুল ইসলাম (পানির বোতল প্রতীক) এর এক সমর্থককে অন্য এক প্রার্থীর সমর্থক দালাল বলায় ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া শুরু হয়। এরপরে বিজিবি সদস্যরা এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

কালীগঞ্জ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, কেন্দ্রে উত্তেজনা দেখা দিয়েছিল। এখন পরিস্থিতি শান্ত।ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ পৌরসভায় রোববার সকাল ৮ টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়; একটানা চলবে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত।

ঝিনাইদহ জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা রোকুনুজ্জামান জানান, ভোটকেন্দ্রে বিজিবি, পুলিশ, আনসার, ইস্টাকিং ফোর্স, মোবাইল কোট টিম, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিযুক্ত করা হয়েছে।

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে চার মেয়রপ্রার্থী, নয়টি সাধারণ ওয়ার্ডে ৫০ জন পুরুষ কাউন্সিলর ও তিনটি সংরক্ষিত আসনে ৯ নারী কাউন্সিলর প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ পৌরসভায় মোট ভোটার ৪০ হাজার ৫৭৭ জন। এদেরর মধ্যে পুরুষ ২০ হাজার ১৫৬ এবং নারী ২০ হাজার ৪২১ জন।