ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ ঝালকাঠি সদর হাসপাতালের করোনা আইসোলেশন ওয়ার্ড টি জরাজীর্ণ অবস্থায় পরিনত।ঝোপ ঝাড়ের মধ্যে অবস্থিত এ করোনা ইউনিট।দেখা গেছে, বৃষ্টিতে ছাদের পানি নিচে পরে পানিতে তলিয়ে যাচ্ছে।ছাদ ছিদ্র হয়ে পরা পানিতে রোগীর বিছানা ভিজে গেছে। এ করোনা মহামারিতে একটা বেড যেখানে সোনার হরিন তখন বেড পেয়েও রোগী থাকতেপারছে না বরাদ্দকৃত বেডে।জানালা ভাঙা,জানালা নাই,কোভিড রোগী থাকার ইউনিট অপরিস্কার ময়লা আবর্জনায় ভরে আছে।কোভিড ইউনিটের পাশে থাকা জঙ্গল অদ্যাবধি পরিস্কারের কোন ব্যবস্থা গ্রহন করে নাই।রোগীদের অভিযোগ মশার উৎপাত লেগেই থাকে।সন্ধ্যা হওয়ার শুরু থেকেই মশার উৎপাতে মনে হয় মশার খনি।বাথরুমের এ দুর্দশা দীর্ঘ দিনের। আমরা বার বার বলা সত্বেও এখানে কর্মরত কেহ কোন ব্যবস্থা গ্রহন করেনা।যে অবস্থা তাতে এখানে কোন কোভিড রোগি আসলে সে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনাই বেশী।
এ দুর্দশা থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য ঝালকাঠীর অভিভাবক জননেতা আলহাজ্ব আমির হোসেন আমু,ঝালকাঠীর সুযোগ্য জেলা প্রশাসক,ও স্বাস্থ্য মন্ত্রী র নিকট দাবী জানান রোগীর স্বজনরা।রোগীর স্বজনরা আরো দাবী জানান এ হাসপাতালের সকল অনিয়মের তদন্ত করা।