খোরশেদ আলম, দিনাজপুর ঃদিনাজপুর রেসিডেন্সিয়াল স্কুল এন্ড কলেজ সুষ্ঠু ও সুন্দর পরিবেশে মান সম্মত সুশিক্ষা, মজবুত শিক্ষা ভিত্তি স্থাপন, নৈতিকতা, মানবিকতা, সময়ের মূল্য, সৃজনশীল প্রতিভা ও সুন্দর মনের বিকাশ সাধনের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের মানুষ হিসেবে গড়ে তোলার চেষ্টা করছে। আমরা বিশ্বাস করি, বিদ্যালয় হচ্ছে মানুষ তৈরীর কারখানা। পড়াশোনার পাশাপাশি নৈতিক শিক্ষার মাধ্যমে মডেল শিক্ষার্থী গড়ার লক্ষ্যে এখানকার শিক্ষকরা অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। আমরা মনে করি পরিবারের অভিভাবক-শিক্ষক ও শিক্ষার্থীর মধ্যে সমন্বয় থাকলে ভালো মানুষ গড়া সম্ভব। দিনাজপুর রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজ আয়োজিত ষষ্টিতলাস্থ বিদ্যালয়ের হলরুমে মানসম্মত শিক্ষা, সৃজনশীল প্রতিভা এবং সুন্দর মনের বিকাশ সাধনে পরিবার ও শিক্ষালয়ের ভূমিকা শীর্ষক মত বিনিময় সভা সম্মানীত অতিথিরা এসব কথা বলেন। দিনাজপুর রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজের চেয়ারম্যান নাহিদ পারভীন মুফতির সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোঃ কামরুজ্জামান। সম্মানীত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন দিনাজপুর সরকারি মহিলা কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর এম.এ জব্বার, দিনাজপুর পৌরসভার মেয়র সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, সহকারী তথ্য অফিসার মোঃ সোহেল মিয়া, এ্যাডভোকেট গোলাম রহমান বাবুল, মির্জা গ্র“পের জি.এম মোঃ কামরুল হাসান, কবি আহসান হাবিব প্রধান, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মাহমুদুন্নবী চৌধুরী, নাগরিক ফোরামের সাধারণ সম্পাদক মোঃ রবিউল ইসলাম, শিক্ষক কায়ছার আলী, মোজাহার হোসেন তালুকদার, সাংবাদিক নুরুল হুদা দুলাল, মোঃ ওয়াজেদ আলী, হাবিপ্রবি’র একাউন্টস অফিসার রবিউল ইসলাম লিমন। সভাপতির বক্তব্যে নাহিদ পরভীন মুফতি বলেন, পরিবার সচেতন না হলে শিক্ষার্থীরা কখনো সচেতন হবে না। পড়াশোনার পাশাপাশি নৈতিক শিক্ষার প্রয়োজন রয়েছে। আসুন আমরা আমাদের সন্তানদের নৈতিক শিক্ষার মাধ্যমে প্রকৃত শিক্ষায় শিক্ষিত করে গড়ে তুলি।