সৈয়দুর রহমান সৈয়দ, পাকুন্দিয়া ( কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি: রিক্ত আমি সিক্ত আমি, দেওয়ার কিছুই নেই আছে শুধু ভালবাসা দিয়ে গেলাম তাই—

কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলার সুখিয়া ইউনিয়নের করোনা কালীন সময়ে মানুষের পাশে থেকে নিজ অর্থায়নে ও সরকারী ত্রাণ বিতরণ সহ কাজ অব্যহত রেখে এই দূরসময়ে মানুষের পাশে থেকে কাজ করাই আমার মূল উদ্দ্যেশ্য–

কিছু কথা অব্যক্ত রয়ে যায়,

কিছু অনুভূতি মনের মাঝে থেকে যায়,

কিছু স্মৃতি গোপনে কাঁদায়,

শুধু এই একটি দিন সব ভুলিয়ে দেয়।”

————–ঈদ মোবারক —————-

করোনা ভাইরাস মহামারি থেকে বিশ্ববাসী মুক্তি পাক- এই আশা-প্রত্যাশা রেখে কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলার সুখিয়া ইউনিয়নবাসীকে ঈদ- উল- আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন সুখিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আ: হামিদ টিটু ।

শুভেচ্ছা জানিয়ে চেয়ারম্যান আ: হামিদ টিটু বলেন, “বছর ঘুরে আবার পবিত্র ঈদ- উল- আযহা আমাদের মাঝে এসেছে। করোনাভাইরাস মহামারির সব অন্ধকার কাটিয়ে ঈদ- উল- আযহা আপনাদের মাঝে বয়ে আনুক অনাবিল সুখ-শান্তি। আপনাকে এবং আপনার পরিবারের সবাইকে ঈদ- উল- আযহা’র শুভেচ্ছা জানাচ্ছি এবং দেশের এই বর্তমান করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি মাথায় রেখে সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে আহ্বান জানাচ্ছি। করোনা ভাইরাসের বিস্তার রোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। সুস্থ থাকুন, নিরাপদ থাকুন। সবাইকে ঈদ মোবারক।”

তিনি আরো বলেন, উৎসবের সঙ্গে সঙ্গে ঈদে থাকুক নিরাপত্তা ও সচেতনতা। কোরবানির কারণে যেন আমাদের পরিবেশের দূষণ বা কোন প্রকার ক্ষয়ক্ষতি না হয়, সেদিকে সবার লক্ষ্য রাখতে হবে। এবার পবিত্র ঈদ- উল- আযহা এমন একটি সময়ে সমাগত, যখন মহামারি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত সমগ্র বিশ্ব। আমরা অনেকেই করোনা ভাইরাসে আপনজনকে হারিয়েছি। তাই সচেতনতার সঙ্গে পারস্পরিক ভ্রাতৃত্ববোধ, সামাজিক দায়বদ্ধতা ও দায়িত্বশীল আচরণ, অনুশীলন এবং করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার মধ্য দিয়েই শান্তিপূর্ণভাবে পালিত হোক পবিত্র ঈদ।

পরম করুণাময় আল্লাহ তায়ালার নিকট প্রার্থনা করে তিনি বলেন, মানুষের জীবন থেকে দূরীভূত হোক সকল মহামারি, দুঃখ-কষ্ট।

প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার সুদক্ষ নেতৃত্বে অতীতে বাংলাদেশ যেভাবে সকল সংকট উত্তরণের মধ্য দিয়ে এগিয়ে গেছে ঠিক একইভাবে করোনা সংকট জয় করে কাঙ্ক্ষিত উন্নয়ন ও সমৃদ্ধির অগ্রযাত্রায় নব উদ্যমে এগিয়ে যাবে দেশ।