যুক্তরাজ্যে নিযুক্ত ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত ভাদইয়াম প্রাসতেকো বলেছেন, পদত্যাগের ঘোষণা দেওয়া ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের জন্য চাঁদা তোলা হবে৷

আর এ চাঁদার টাকা দিয়ে বরিস জনসনের ইউক্রেন সফরের ব্যবস্থা করা হবে৷

ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত বলেছেন, ইউক্রেনের সাধারণ জনগণের কাছে বরিস ‘খুব জনপ্রিয়।’

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর ইউক্রেন সফরের ব্যাপারে রাষ্ট্রদূত বলেন, আমার বলতে হবে সে খুব জনপ্রিয় ছিল৷

তিনি আরও বলেন, তুরস্কের তৈরি বায়রাকতার ড্রোন কেনার জন্য সাধারণ ইউক্রেনীয়রা পর্যাপ্ত অর্থ চাঁদা তোলার মাধ্যমে সংগ্রহ করেছে৷ পরবর্তী চিন্তা হলো বরিস জনসন ইউক্রেনে আসার জন্য চাঁদা তোলা হবে৷

এদিকে বরিস জনসন গত এপ্রিলে হঠাৎ করে ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভ যান৷ তখন কিয়েভের অবস্থা বেশ উত্তপ্ত ছিল৷ বিশ্বনেতাদের মধ্যে প্রথম ব্যক্তি হিসেবে চরম ঝুঁকি নিয়ে কিয়েভে যান৷ এ বিষয়টিও উল্লেখ করেন ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত।

তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন, বরিস জনসন যেভাবে ইউক্রেনকে সহায়তা করে গেছেন ব্রিটেনের পরবর্তী প্রধানমন্ত্রীও সেভাবে সহায়তা করে যাবেন।

সূত্র: দ্য গার্ডিয়ান