নাদিম হায়দার, ব্যুরো প্রধান  মুন্সীগঞ্জ: মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে কোলা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম তারন রাজনৈতিক প্রতিহিংসার বলিয়ান হচ্ছেন তার বিরুদ্ধে  মিথ্যে অপকর্ম ও ষড়যন্ত্র রটাচ্ছেন একটা মহল তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান তারা।

আমি মোঃ রফিকুল ইসলাম তারন, পিতা হাজী মোঃ ইদ্রিস দেওয়ান (মৃত) গ্রাম কোলা,পোঃকোলা, ইউনিয়ন কোলা, থানাঃ সিরাজদিখান , জেলা মুন্সিগঞ্জ, ২০০২ সালে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পাই এবং পরবর্তী কমিটিতে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসাবে নির্বাচিত হই সেই থেকে এখন পর্যন্ত সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছি, ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ অগোছালো ছিল আমি দায়িত্ব পেয়ে শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের কর্মী তৈরি করেছি, কোন অঙ্গ সংগঠন ছিল না প্রত্যেকটি অঙ্গ সংগঠনের কমিটি  আমার প্রচেষ্টায় হয়েছে, 

আওয়ামী লীগের প্রত্যেকটি অঙ্গসংগঠনকে কোলা ইউনিয়নে আমি গুছিয়ে রেখেছি, বাবু সুকুমার রঞ্জন ঘোষ সাবেক এমপি ,ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাজী মহিউদ্দিন দাদা এ ব্যাপারে অবগত আছেন। আমি সব সময় স্বচ্ছ পরিচ্ছন্ন রাজনীতি করেছি আমার নামে বিগত দিনে ও বর্তমানে কোন দুর্নীতি নেই। টেন্ডারবাজি ,হামলা মামলা, ভূমিদস্যু, চাঁদাবাজি, মাদক, কোনটার অভিযোগ নেই, এই সবের প্রতিবাদ প্রতিরোধ করাতেই একটা কুচক্র মহল আমার নামে নানা অপকর্ম ছড়াচ্ছে দুইটা অনলাইন পোর্টালে তারা আমার নামে ভুল সংবাদ প্রকাশ করিয়েছে , আমি কখনোই বিএনপির রাজনীতির সাথে জড়িত ছিলাম না আমি আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে কোন অপপ্রচার করিনি কোন কিছু ভাঙচুর ও করিনি।

বিএনপির ধানের শীষের মার্কা ও ছবি দিয়ে যে পোস্টার টি দিয়ে আমাকে মিথ্যে জড়ানো হয়েছে সম্পূর্ন মিথ্যা বানোয়াট ঐ ছবি আমার না ওই মুহূর্তে আমি জাপান পরবর্তীতে কোরিয়ায় কর্মজীবী ছিলাম। আমি বর্তমানে কোলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী হওয়াতে আমার প্রতিপক্ষ মহল হিংসায় আমার বিরুদ্ধে উঠে পড়ে লেগেছে।

যারা আমার বিরুদ্ধে অপপ্রচার ও অপকর্ম রটাচ্ছেন তাদের বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে থানায় একটি অভিযোগ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।