এই আমার দেশ ডেস্ক :

প্রয়াত কিংবদন্তী ডিয়েগো ম্যারাডোনার মৃত্যুতে কোনো গাফিলতি হয়েছে কিনা, এ নিয়ে তদন্ত চলমান। সেই তদন্তের মাঝেই এবার রাজপথে নেমেছে আর্জেন্টাইন ফুটবল ঈশ্বরের পরিবার। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে এ তথ্য প্রকাশিত হয়েছে।

মূলত ন্যায়বিচারের দাবিতে অনুষ্ঠিত হয়েছে ‘জাস্টিস ফর ডিয়েগো’ র‌্যালি। গত সপ্তাহে সেই র‌্যালির কথা সোশ্যাল মিডিয়ায় জানানো হয়। আর্জেন্টিনার রাজধানী বুয়েন্স আয়ার্সে ঐতিহাসিক স্তম্ভ চত্বর ওবেলিস্ক থেকে শুরু হয় আন্দোলনকারীদের পদযাত্রা। এতে অংশ নিয়েছেন ম্যারাডোনার দুই মেয়ে ও সাবেক স্ত্রী ক্লদিয়া ভিল্লাফানে। তাদের এই সময় র‌্যালিতে একটি ব্যানার হাতে ঘুরতে দেখা যায়। তাতে লেখা ছিল, ‘দোষীদের সামাজিক ও বিচার বিভাগীয় শাস্তি চাই।’

আরও পড়ুন:
পেলের নামে মারাকানা

পরিবারের সদস্যদের মধ্যে ম্যারাডোনার ছেলে ডিয়েগো ফার্নান্ডো ও তার মা ওজেডাসহ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচারের দুই সপ্তাহের মাথায় হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাওয়ার পরেই গত ২৫ নভেম্বর মৃত্যুবরণ করেন ম্যারাডোনা। মারা যাওয়ার কারণ হিসেবে উল্লেখ করা হয় হার্ট অ্যাটাকের কথা। এরপর থেকেই ম্যারাডোনার মৃত্যুতে সাত জনের বিরুদ্ধে তদন্ত চলমান আছে। এরমধ্যে রয়েছেন ম্যারাডোনার মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচারকারী চিকিৎসক লিওপোলডো লুকে। তদন্তকারীরা এটাই খুঁজে দেখার চেষ্টা করছেন, ম্যারাডোনার চিকিৎসায় কোনও গাফিলতি ছিল কিনা।