সাইদুর রহমান, হরিণাকুণ্ডু প্রতিনিধিঃ করোনা ভাইরাসের চলমান সংক্রমণের কারণে আরোপিত বিধিনিষেধের ফলে নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে সহায়তা দানের জন্য ওএমএস এর বিশেষ কার্যক্রম পরিচালনা। এই কার্যক্রম ২৫ জুলাই হতে ৭ আগস্ট ২০২১ পর্যন্ত কার্যকর থাকবে বলে জানান ও এম এস ডিলার মোঃ বাবুল হাসান। উক্ত কার্যক্রম অব্যাহত থাকায় নিম্ন আয়ের মানুষের নিকট হতে ইতিবাচক সাড়া পাওয়া গেছে।

রবিবার সকাল ১০ টার দিকে হরিণাকুণ্ডু পৌর মেয়র মোঃ ফারুক হোসেন একতারা মোড়ের ওএমএস বিপনণ কেন্দ্র উদ্বোধন করেন। উপস্থিত ছিলেন উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা, একটি বাড়ি একটি খামার কর্মকর্তা ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

হরিণাকুণ্ডু পৌরসভাধীন হরিণাকুণ্ডু বাজার, উপজেলা দোয়েল চত্বর মোড়, একতারা মোড়, পার্বতীপুর বাজার ও আমের চারা মোড় এই ৫টি কেন্দ্রে একযোগে সামাজিত দুরত্ব বজায় রেখে মাথাপিছু ৫ কেজি চাউল ও কেজি আটা বিপনণ করা হয়।

ওএমএস কেন্দ্রগুলোতে প্রতি কেজি চাউল ৩০ টাকা এবং প্রতি কেজি আটা ১৮ টাকা দরে বিক্রয় করা হচ্ছে। প্রতিদিন সকাল ৯টা হতে বিকাল ৫টা পর্যন্ত প্রত্যেকটি কেন্দ্র হতে ৯০০ কেজি চাউল ও ৬০০ কেজি আটা বিপনণ করা হবে বলে জানান একতারা মোড়ের ডিলার জনাব তারিকুজ্জামান রাজু।