নিজস্ব প্রতিবেদক: নরসিংদীর মাধবদীতে ১২ বছরের এক কন্যা শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে পিতা মমিনুল (৩৭) কে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ।

কন্যা শিশুর মায়ের দায়ের করা অভিযোগের প্রেক্ষিতে রবিবার দুপুরে মাধবদী পৌর শহরের আনন্দী এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে নিজ কন্যাকে গত তিন মাসে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ স্বীকার করেছে গ্রেফতারকৃত পিতা।

পুলিশ জানায়, রাজমিস্ত্রী মমিনুল তার স্ত্রী জাহানার বেগম ও স্থানীয় একটি স্কুলের সপ্তম শ্রেণীতে পড়ুয়া একমাত্র কন্যাসন্তানসহ আনন্দী এলাকায় ভাড়া থাকতো। তার স্ত্রী টেক্সটাইল মিলে কর্মরত থাকায় প্রায়ই মেয়েকে বাসায় একা পেয়ে উত্যক্ত করতো। গত তিন মাস আগে ধর্ষণের বিষয়টি নজরে আসলে পারিবারিকভাবে মিমাংসার চেষ্টা করা হয়। রবিবার (১৪ জুলাই) সকালে পুনরায় মেয়েকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করলে মাধবদী থানায় অভিযোগ দায়ের করেন কন্যা শিশুটির মা। এরই প্রেক্ষিতে মাধবদীর আনন্দি এলাকায় অভিযান চালিয়ে গ্রেপ্তার করা হয় তাকে।

গ্রেপ্তারকৃত মমিনুল কুষ্টিয়া জেলার হরিণারায়নপুর এলাকার মৃত সিরাজুল ইসলামের ছেলে। ভিকটিম ওই স্কুল শিক্ষার্থীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।