রাসেল কবির মুরাদ , কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধিঃ  কলাপাড়া পায়রা বন্দরে শের-ই-বাংলা নৌ-ঘাটিতে যাওয়ার সড়কটি এখন যেন মরন ফাঁদে পরিনত হয়েছে। লালুয়া ইউনিয়নের বানাতি বাজার থেকে দুই কিলোমিটার ইটের সড়কের বেশ কয়েকটি স্থানে খানা-খন্দক অবস্থায় পড়ে রয়েছে। কোথাও কোথাও ইট সড়ে গিয়ে কাঁচা রাস্তায় পরিণত হয়েছে। আবার কোথাও বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। ফলে চরম দূর্ভোগ পোহাচ্ছে কয়েক হাজার মানুষ। এমনকি সামান্য বৃষ্টি হলেই
চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে। তাই সড়কটির দ্রুত সংস্কারের দাবী জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, লালুয়া ইউনিয়নের পশরবুনিয়া, দশকানি, ছোনখলা,চড়পাড়া গ্রামের কয়েক হাজার লোকজন এ সড়ক দিয়ে প্রতিদিন যাতায়াত করে।ঘূর্ণিঝড় আম্ফানসহ মালবাহী ট্রলি চলাচলের কারনে সড়কটি বেহাল দশা হয়ে পড়ে।
বর্তমানে জরুরী রোগী যাতায়াতে চরম বিপাকে পড়তে হচ্ছে।পশরবুনিয়া গ্রামের বাসিন্দা মো.রুহুল আমিন হাওলাদার বলেন, দীর্ঘদিন ধরে এসড়কটি বেহাল অবস্থায় রয়েছে। ঘূর্ণিঝড় আম্ফানের কারনে এখন আরো খারাপ অবস্থা হয়েছে।

লালুয়া ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য মো.লিটন সাউগার বলেন, পায়রা বন্দরের শের-ই-বাংলা নৌঘাটিতে যাওয়ার দুই কিলোমিটার রাস্তাই খারাপ অবস্থা হয়ে পড়েছে। সড়কটি দ্রুত সংস্কার করা প্রয়োজন বলে তিনি জানান। লালুয়া ইউনিয়নের পরিষদের চেয়ারম্যান শওকত হোসেন তপন বিশ্বাস বলেন, এ সড়কটির ব্যাপারে বিভিন্ন দপ্তরে আবেদন করেছি। কিন্তু অদ্যাবদি কোন সুরাহা পায়নি বলে তিনি সাংবাদিকদের জানান।