বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যা মামলার আইনজীবী এহসানুল হক সমাজী নিজের নিরাপত্তার জন্য সরকারের কাছে গানম্যান চেয়ে আবেদন করেছেন। বন্দুকধারী দেহরক্ষী চেয়ে করা আবেদনটি ইতিমধ্যে আইন সচিবের কাছে পাঠানো হয়েছে।

এ বিষয়ে জানতে অ্যাডভোকেট সমাজী সময় নিউজকে বলেন, আমার সার্বিক নিরাপত্তার জন্য গানম্যান চেয়েছি। এ মামলাটি অত্যন্ত স্পর্শকাতর, তাই আমি মনে করি মামলাটি সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করতে নিরাপত্তার বিষয়টি সবার আগে নিশ্চিত হওয়া দরকার।

তিনি আরও বলেন, আমি আবেদনটি করেছি যাতে ২ সেপ্টেম্বরের আগেই আমাকে গানম্যান দেয়া হয়।

গত ২ জুলাই সরকার আবরার ফাহাদ হত্যা মামলায় অ্যাডভোকেট সমাজীকে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী নিযুক্ত করে। এরপর ২৪ আগস্ট বুয়েট কর্তৃপক্ষও তাদের আইনজীবী হিসেবে সমাজীকে নিয়োগ দেয়।

২০১৯ সালে ৬ অক্টোবর দিবাগত রাত ৩টার দিকে বুয়েটের শেরে বাংলা হলে ছাত্র আবরারকে নির্মমভাবে পিটিয়ে হত্যার পর ৭ অক্টোবর চকবাজার থানায় হত্যা মামলা করেন আবরারের বাবা।

ওই বছরের ১৩ নভেম্বর মামলার গোয়েন্দা পুলিশ ২৫ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দেন। আসামিদের মধ্যে ২২ জন কারাগারে ও তিনজন পলাতক রয়েছেন।