ডা: মো: হাফিজুুর রহমান (পান্না), রাজশাহী ব্যুরো :রাজশাহীতে নির্মাণাধীন বঙ্গবন্ধু হাইটেক পার্কের কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন করেছেন সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা। রাজশাহী-২ (সদর) আসনের এই সংসদ সদস্য মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে নিজের নির্বাচনি এলাকায় নির্মাণাধীন এই হাইটেক পার্ক পরিদর্শন করেন।

এরপর জাতীয় শোক দিবস ২০২০উপলক্ষ্যে ও মাননীয় প্রধানমনন্ত্রী শেখ
হাসিনার ঘোষিত জাতীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে তিনি হাইটেক পার্কে দুইটি সেগুন বৃক্ষ রোপন করেন জননেতা ফজলে হোসেন বাদশা , রাসিকের প্যানেল মেয়র-২ ও সম্মানিত -১নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ রজব আলী ।

এ সময় ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, হাইটেক পার্কে ইতোমধ্যে স্পেশ বরাদ্দ শুরু হয়েছে। এটি চালু হওয়ার পর রাজশাহী হবে প্রযুক্তির নগরী। শিক্ষিত তরুণ-তরুণীদের জন্য খুলবে কর্মসংস্থানের দুয়ার। তাই দ্রæত সময়ের মধ্যেই যেন নির্মাণ কাজ শেষ হয় সে জন্য তিনি সব সময় হাইটেক পার্কের খোঁজখবর রাখছেন।

উক্ত বৃক্ষ রোপন অনুষ্ঠানে অনান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী বিশ^বিদ্যালয়ের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মীর্জা মোয়াতাছিম বিল্লাহ ,রুয়েট অফিসার্স এসোসিয়েশনের সাধারন সম্পাদক ও সাবেক ছাত্রলীগ নেতা প্রকৌশলী মুফতি মাহমুদ রনিসহ হাইটেক পার্কের প্রকৌশলী ও কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, রাজশাহীতে বঙ্গবন্ধু হাইটেক পার্ক স্থাপনের জন্য সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা জাতীয় সংসদে একাধিকবার দাবি জানান। ২০১৭ সালের ১৮ জুলাই নগরীর জিয়ানগর এলাকায় ৩১ দশমিক ৬৩ একর জমির ওপর হাইটেক পার্কটির নির্মাণ কাজ শুরু হয়। এতে ব্যয় হচ্ছে ২৮১ কোটি ১৯ লাখ টাকা।