মনোয়ার বাবু (ঘোড়াঘাট) দিনাজপুর প্রতিনিধিঃদিনাজপুর ঘোড়াঘাটে ভেজাল পণ্যসহ দুই জন কে আটক করেছে ঘোড়াঘাট থানা পুলিশ।আটককৃত আসামি দিনাজপুর ঘোড়াঘাট ৩ নং সিংড়া ইউনিয়নের বিরাহিম পুর গুচ্ছগ্রামের মোঃ মোকছেদ আলী প্রামাণিকের দুই ছেলে মোঃ আবু সিদ্দিক প্রামাণিক (৩০) এবং মোঃ সাইদ আলী প্রমাণিক(২৮)।

পুলিশ জানান, ২৪ ডিসেম্বর (বৃৃহস্পতি) এসআই জিয়াউর রহমানের নেতৃত্বে এসআই খুরশিদ আলম,এসআই ফজলার রশিদ,এসআই দুলু মিয়া,এসআই মতিয়ার রহমান,এসআই রফিকুল ইসলাম,এসআই হাসেম,এসআই হাবিব সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে গোপন সংবাদের মাধ্যমে রাত আনুমানিক ১:১৫ মিনিটে বিপুল সংখ্যক ভেজাল খাদ্য সামগ্রী, ভোজ্য তেল, যৌন উত্তেজক সিরাপ জব্দ সহ দুই ভাই কে আটক করে থানা পুলিশ।আটককৃত আসামি দীর্ঘ দিন যাবত এসব ভেজাল পণ্য সামগ্রী তৈরী এবং বাজারজাত করে আসছি বলে তারা শিকার করে।

ঘোড়াঘাট থানা অফিসার ইনচার্জ আজিম উদ্দিনের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পেরে আমি আমার অফিসার ফোর্স কে নির্দেশ দিলে মোকছেদ আলীর বসতবাড়ি থেকে বিপুল সংখ্যক ভেজাল খাদ্যসামগ্রী,নকল যৌন উত্তেজক সিরাপ, খাদ্যসামগ্রী তৈরীর উপকরণ সহ দুই জন কে আটক এবং অপর এক আসামি পলাতক রয়েছে বলে জানান।আটককৃত আসামিদ্বয় কে নকল ও ভেজাল পণ্য উৎপাদন বাজারজাত করার কারনে ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে।  আসামিদ্বয় কে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে এবং অপর পলাতক আসামিকে আটকের জন্য জোড় প্রচেষ্টা চালানো হচ্ছে বলেও তিনি জানান।

উল্লেখ্য জব্দ কৃত ভেজাল যৌন উত্তেজক নকল খাদ্যসামগ্রী গুলো হচ্ছে, থাইল্যান্ড গার্স ২৪১ বোতল,স্পেশাল গড ফাদার ১১৯ বোতল,জিনসিন প্লাস ১৬৩ বোতল,হরমোন ডি ৯৬ বোতল,নাইট পাওয়া ৪৪ বোতল,ডাবল হর্স ৩৬ বোতল,স্পেশাল তুফান ২৩ বোতল,জিনসিং মাল্টি সিরাপ ৪৬ বোতল,ঠেকাও বাবা ২১ বোতল,রেস ফুড সিরাপ ২৪০ বোতল,ভাটিয়া রুপসী রানী নারিকেল তেল ২০ পিচ,নেহা ৪৮ বোতল,যমুনা সয়াবিন তেল ১১৬ বোতল,অর্নেষা চানাচুর ৫৬ টি বড় পেকেট (প্রতি পেকেটে ১০ টি), দাদা ঝাল চানাচুর ১৮ টি বড় পেকেট(প্রতি পেকেটে ১০ টি), ১০ লিটার সাদা রং এর রাসায়নিক পদার্থ,৫ কেজি সাদা রং এর রাসায়নিক পাউডার এবং বিভিন্ন কম্পানির নামে তৈরীকৃত প্লাস্টিকের বোতল,কর্ক,ডিটারজেন পাউডারের খোলা পেকেট।এসব জব্দকৃত ভেজাল খাদ্যসামগ্রী নকল যৌন উত্তেজক এবংঅন্যান্য রাসায়নিক পদার্থের আনুমানিক মূল্য প্রায় ২,৫০,০০০০/ হাজার টাকা।