মাসুম বিল্লাহ,বাগেরহাট প্রতিনিধিঃ

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে জাল এনআইডি তৈরির অপরাধে মুসা জোমাদ্দার (২৫) নামে কম্পিউটার দোকানের মালিককে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। মঙ্গলবার রাত ১০ টার দিকে এ দন্ডাদেশ প্রদান করেন মোরেলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মো. জাহাঙ্গীর আলম।

দন্ডাদেশ পাওয়া যুবকের নাম মুসা জোমাদ্দার। তিনি উপজেলার দৈবজ্ঞহাটি ইউনিয়নের আলত বুরুজবাড়িয়া গ্রামের আ. জলিল জমাদ্দারের ছেলে। তার পোলেরহাট বাজারে মুসা কম্পিউটার নামে একটি দোকান রয়েছে,যেটি তিনি নিজেই পরিচালনা করে আসছেন।
ভ্রাম্যমান আদালত সুত্রে জানা যায়,উপজেলার চিংড়াখালী ইউনিয়নের পাচানী গ্রামের মো. রমজান মুন্সী(২৫) তার মৃত্যু পিতা মো.জামাল মুন্সীর প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র জমা দিয়ে উপজেলা নির্বাচন অফিস থেকে এন আই ডি (ভোটার আইডি) তালিকায় নিজের নাম অন্তর্ভুক্ত করেন। উপজেলা নির্বাচন অফিস রমজান মুন্সীর জমাকৃত কাগজপত্র চেক করে দেখতে পান আবেদনের সাথে জমাকৃত তার পিতা-মাতার এনআইডি কার্ড জাল এবং অন্য লোকের।ওই কার্ডের সিরিয়ালের নামের সাথে তার পিতা-মাতার নামের কোন মিল নেই। ঘটনার দিন মঙ্গলবার রমজান মুন্সীকে অফিসে তার পিতা-মাতার মুল ভোটার আইডি কার্ড নিয়ে হাজির হতে বল্লে তিনি জিজ্ঞাসাবাদে আবেদনের সাথে জমাদেয়া তার পিতা-মাতার নামের এনআইডি কার্ড যে অন্যলোকের বা ভূয়া তা নিশ্চিত হন উপজেলা নির্বাচন অফিসার মো. মোস্তফা কামাল। রমজানের স্বীকারোক্তিতে মিথ্যা তথ্য দিয়ে জাল আইডি কার্ড তৈরীকারী পোলেরহাট বাজারের মুসা কম্পিউটারের মালিক মুসা জোমাদ্দারকে আটক করে মঙ্গলবার রাতে উপজেলা নির্বাচন অফিসে নিয়ে আসে পোলেরহাট ফাঁড়ি পুলিশ। মিথ্যা তথ্য দিয়ে রমজানের পিতা-মাতার নামে ভূয়া এনআইডি কার্ড প্রস্তুত করে দেয়ার কথা স্বীকার করে মুসা জোমাদ্দার।পরে উপজেলা নির্বাচন অফিসে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে জন্মনিবন্ধন আইন ২০০৪- ২১ এর ২ ধারা অনুযায়ী কম্পিউটার দোকানী মুসা জোমাদ্দারকে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।